মঙ্গলবার, ২৩ এপ্রিল ২০২৪ | ৯ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

পানির নিচে ইফতার!

অনলাইন ডেস্ক
২৭ মার্চ ২০২৩ ০৪:৩৫ |আপডেট : ২৭ মার্চ ২০২৩ ১৮:৩১
দুবাইয়ে  পানির নিচে ইফতার
দুবাইয়ে পানির নিচে ইফতার

রমজানে পরিবারের সঙ্গে আনন্দ ভাগাভাগি করে নেওয়ার সুবর্ণ সুযোগ পান মুসলমানরা। সেহেরি কিংবা ইফতারকে কেন্দ্র করে থাকে নানা আয়োজন। প্রতি বছর এ মুহূর্তকে স্মরণীয় করে রাখতে দুবাই করে নানা আয়োজন। এবারও করেছে ভিন্নধর্মী ব্যবস্থা। দেশটির মানুষ পানির নিচে, সিংহ-প্রজাপতির সঙ্গে, গাছের নিচে কিংবা তারকারাজির সঙ্গেও কাটাতে পারবে ইফতারের আনন্দঘন মুহূর্ত। খবর খালিজ টাইমসের।

দুবাইয়ের জাতীয় একুয়ারিয়াম ও শাংরি লা কারইয়াত আল বেরির যৌথ উদ্যোগে করা হয়েছে পানির নিচে ইফতারের অভিনব ব্যবস্থা। এতে ৩০ থেকে ৫০ জনের জন্য পানির নিচে বসে ইফতার করতে পারবে।

তবে এর জন্য একজনকে গুনতে হবে ৬০০ দিরহাম। কেউ প্রজাপতির সঙ্গে ইফতার করতে চাইলে চলে যেতে পারে দুবাইয়ের শারজাহর আল নুর দ্বীপে। প্রাকৃতিক পরিবেশে ইফতারের পাশাপাশি দেখা মিলবে রঙবেরঙের প্রজাপতির। এখানে যেতে হলে প্রাপ্তবয়স্কদের লাগবে ১৮০ দিরহাম। আর শিশুদের ৯৫ দিরহাম করে। কেউ চাইলে পশুর সঙ্গেও সময় কাটাতে পারেন। তবে তার জন্য যেতে হবে আল-আইন চিড়িয়াখানায়। যেখানে আছে সিংহ, জিরাফ সহ নানা ধরনের পশু-পাখি।

ম্লেইহাজ রমাদান স্টার লাউঞ্জ-এ চাইলেই খোলা আকাশের নিচে বসে পরিবারের সঙ্গে ইফতার করা সম্ভব। যার জন্য প্রয়োজন পড়বে ২৫০ দিরহাম করে আর শিশুদের জন্য মাত্র ১৫০ দিরহাম। জলপাই গাছের নিচে বসেও ইফতার করতে পারবে যে কেউ। তার জন্য তাকে যেতে হবে বুলগেরি ইয়ট ক্লাবে। দেশটির মহাকাশ গ্রুপ আল-কুদরা মরুভূমিতে আয়োজন করেছে ইফতারের। সেখানে পাওয়া যাবে মহাশূন্যে বসে ইফতার করার অনুভূতি।



মন্তব্য করুন